Breaking News
Home / National / আলোচিত বিষয়ে যা বললেন আজহারী

আলোচিত বিষয়ে যা বললেন আজহারী

হেফাজতে ইসলামের কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব মামুনুল হককে এক নারীসহ সোনারগাঁওয়ের রয়েল রিসোর্টে স্থানীয়রা অবরুদ্ধ করে। পরে পুলিশ গিয়ে তাদের উদ্ধার করে। ওই নারীকে নিজের দ্বিতীয় স্ত্রী বলে দাবি করেছেন মামুনুল হক। এ ঘটনায় রিসোর্টটিতে উত্তপ্ত অবস্থার সৃষ্টি হয়।বিষয়টি নিয়ে মাওলানা মিজানুর রহমান আজহারী তার ভেরিফাইড ফেসবুক পেইজে একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন।

তার স্ট্যাটাসটির সঙ্গে তিনি মোহাম্মদ হাসান জামিলের একটি স্ট্যাটাসের স্ক্রিনশট শেয়ার করেছেন। স্ট্যাটাস দুটো আরটিভি নিউজের পাঠকদের জন্য হুবহু তুলে ধরা হল ‘যখন তোমরা এটা শুনেছিলে তখনই কেন মু’মিন পুরুষ ও মু’মিন নারীরা নিজেদের সম্পর্কে সুধারণা পোষণ করোনি এবং কেন বলে দাওনি এটা সুস্পষ্ট মিথ্যা দোষারোপ?’ [সূরা নূর, আয়াত : ১২]‘আর যারা মু’মিন পুরুষ ও নারীদের কোন অপরাধ ছাড়াই কষ্ট দেয়, তারা একটি বড় অপবাদ ও সুষ্পষ্ট গোনাহের বোঝা

নিজেদের ঘাড়ে চাপিয়ে নিয়েছে৷’ [সূরা আহজাব, আয়াত: ৫৮] শায়খুল হাদিস আল্লামা মুফতি হাসান জামিলের স্ট্যাটাসের অংশ: ক’দিন থেকেই বলছিলেন, ‘একদম হাঁপিয়ে গেছি।’ পরামর্শ দিয়েছিলাম কোথাও থেকে বেড়িয়ে আসেন। কিছু সময় নিরিবিলি কাটান। তিনি তাই করেছেন।

সোনারগাঁওয়ের এই হোটেলটা পছন্দের, হোটেলের সব স্টাফ ওনাকে প্রচন্ড ভালোবাসেন! নিরিবিলি আর নিরাপদ ভেবেই অবকাশ যাপনে গিয়েছেন দ্বিতীয় ভাবীকে নিয়ে। দুর্ভাগ্য, শিয়াল পালের হাতে পড়েছেন!যে বিষয়টা স্ত্রী, আপনজন, বন্ধুমহল সবাই জানেন তা নিয়ে ওদের কি তুঘলকি কাণ্ড! আছি সুনামগঞ্জ, না হয় সাক্ষী হিসেবে নিজেই হাজির হতাম। ইচ্ছে করেই যেন ওরা পরিস্থিতিকে চরম ঘোলাটে করছে!

মা’বূদ হেফাজত করো- ভাইকে, জাতিকে, দেশকে! এর আগে মামুনুল হককে আটকের সংবাদ পেয়ে নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও উপজেলার রয়েল রিসোর্টে ব্যাপক ভাঙ’চুর চালিয়েছে হেফাজতে ইসলামের নেতকর্মীরা। ক্র’মেই উ’ত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। এক পর্যায়ে ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নেয় পুলিশ।

About admin

Check Also

‘শিশু বক্তা’ রফিকুল মাদানীকে রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ

রাষ্ট্রবিরোধী, উসকানিমূলক ও ঔদ্ধত্যপূর্ণ বক্তব্য এবং বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির অভিযোগে করা মামলায় ‘শিশু বক্তা’ রফিকুল ইসলাম ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *